- Advertisment -
HomeNewsPoliticsযারা বেসুরো তারা তাড়াতাড়ি বিদায় নিন, আমরা অন্যায়ের বিরুদ্ধে লড়াই জারি রাখব:...

যারা বেসুরো তারা তাড়াতাড়ি বিদায় নিন, আমরা অন্যায়ের বিরুদ্ধে লড়াই জারি রাখব: লকেট চ্যাটার্জী

প্রাণ হারালেন বাংলার ২৯ জন মানুষ ইয়াস পরবর্তীতে বজ্রাঘাতে। লকেট চট্টোপাধ্যায় (Locket Chatterjee) গিয়েছিলেন সিঙ্গুরের বজ্রাঘাতে মৃতদের পরিবারকে সমবেদনা জানাতে। সেখানে গিয়েই তিনি দলবদলুদের বিরুদ্ধে গর্জে উঠলেন, স্পষ্ট ভাষায় দিলেন কড়া বার্তাও।

নসিবপুরে সুস্মিতা কোলের বাড়িতে প্রথমে গিয়েছিলেন বিজেপি সাংসদ লকেট চট্টোপাধ্যায় (Locket Chatterjee)। সেখানে তাঁদের সঙ্গে কথোপকথনের পর, দাদপুরের সাটিথানে কিরণ রায়ের বাড়িতে যান তিনি। সেখানে গিয়ে বেশকিছুক্ষণ মৃতের পরিবারের সদস্যদের সঙ্গে কথাও বলেন লকেট চট্টোপাধ্যায়।

কিছু বেসুরো সুর বেজেই চলেছে কিছুদিন ধরেই। নির্বাচনের পূর্বে যারা তৃণমূল ছেড়ে গেরুয়া শিবিরে যোগ দিয়েছিলেন, তাঁদের মধ্যে অধিকাংশই এখন ফিরতে চাইছেন তৃণমূলে। আবারও মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জীর ছত্রছায়ায়ই তারা ফিরতে চাইছেন বিভিন্ন কারণ দেখিয়ে।

BJP Locket Chatterjee Photo
Locket Chatterjee

এই তালিকায় সর্ব প্রথম নাম লিখিয়েছেন সোনালী গুহ, দীপেন্দু বিশ্বাসরা। এখন আবার বেসুরো সুর শোনা যাচ্ছে রাজীব বন্দ্যোপাধ্যায়ের (Rajib Banerjee) গলা থেকেও। সম্প্রতি স্যোশাল নেটওয়ার্কিং সাইটে তাঁর করা একটি পোস্ট দেখে হতবম্ভ অনেকেই, একই সুর তুলতে বাকিনেই রন্তিদেব সেনগুপ্তও।

লকেট চট্টোপাধ্যায় এই সব দলবদলুদের বিরুদ্ধে এবার সুর চড়ালেন। কটাক্ষের সুরে তিনি বলেন, ‘২ কোটি ২৭ লক্ষ বাংলার মানুষ বিজেপিকে ভোট দিয়েছেন। যারা বিজেপির হাত ছাড়তে চাইছেন, তাঁরা তাড়াতাড়ি বিদায় নিন। আমরা নতুন ভাবে আবারও কাজ শুরু করব।

বুঝতে আগেই পেরেছিলাম, এখন যারা বেসুরো হয়েছেন, তাঁরা ভবিষ্যতে এরকমই কিছু একটা করবেন। লড়াই জারি রাখব আমরা অন্যায়ের বিরুদ্ধে। মন জয়ের কাজ আমরা চালিয়ে যাব মানুষের পাশে থেকে। “দল ঠিক ব্যবস্থা নেবে তাঁদের বিরুদ্ধে” যারা দলের ভালো চায় না,।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

- Advertisment -

প্রায়শ্চিত্ত করলেন গঙ্গার ঘাটে গিয়ে! ‘মমতাই অশুভ শক্তি ধ্বংস করবে’ বিশ্বাস...

গঙ্গার ঘাটে গিয়ে মন্ত্র পড়ে, যজ্ঞ করে করলেন প্রায়শ্চিত্ত। সবকিছু ঠিকঠাক থাকলে মহালয়ার...

‘দেশ শাসন করছেন একজন মা, ধ্বংস করবে অশুভ শক্তিকে’, ইচ্ছা প্রকাশ...

ত্রিপুরার বেশকিছু বিজেপি নেতৃত্বরা নাকি তৃণমূলে নাম লেখানোর জন্য পা বাড়িয়ে রয়েছেন।

আগামী ২০ বছরের মধ্যে বাংলা দেশের ১ নম্বর শিল্পক্ষেত্র হবে’,সভামঞ্চে দাবী...

আগামী ১০০ বছরের মধ্যে রাজ্যে আর বিদ্যুতের অভাব থাকবে না। আগামী ৩ থেকে ৪ বছরের মধ্যে দেউচাপাঁচমি বিশ্বের দ্বিতীয় বৃহত্তম কয়লাখনি হয়ে যাবে’।

রাজ্য সভাপতির পদ হারিয়েও বাংলার হয়ে কাজ করতে চান দিলীপ ঘোষ

বাবুল তৃণমূলে যোগদানের পাশাপাশি বিজেপির রাজ্য সভাপতি পদ থেকে দিলীপ ঘোষকে সরিয়ে দেওয়া হয়েছে।

পরাজিত আসনে ময়নাতদন্তের দাবি শুভেন্দুর, জেলা স্তরে নেতাদের কড়া পরামর্শ

যেই আসনে বিজেপি (BJP) পর্যুদস্ত হয়েছে এবং খুব খারাপভাবে হেরেছে সেই সমস্ত আসনে হারের কারণ পর্যালোচনা করার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন শুভেন্দু অধিকারী (Suvendu Adhikari)।

শুভেন্দু অধিকারীকে পদ থেকে সরানোর প্রক্রিয়া শুরু করে দিয়েছে তৃণমূল কংগ্রেস!

মমতা (Mamata Banerjee) তৃণমূলের (TMC) প্রতি কড়া আক্রমণ শানিয়েছেন বিজেপির (BJP) বর্তমান বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু (shuvendu adhikari)।

‘মারব এখানে, লা* পড়বে শ্মশানে’, এই ডায়লগের জন্যই কলকাতা হাইকোর্টে ছুটলেন...

যুব তৃণমূলের দাবী, সমাবেশে ‘মারব এখানে, লাশ পড়বে শ্মশানে’- Mithun Chakraborty-র বলা ডায়লগের পরই বাংলায় জ্বলে উঠেছে হিংসার আগুন।

মহুয়ার দেওয়া তথ্য ভুল, টুইট রাজ্যপালের, পাল্টা জবাব মহুয়া মৈত্রের

মহুয়া মৈত্র যিনি টুইটারে একটি টুইট করেন স্বজনপোষণ নিয়ে, প্রত্যেক বারের মত এবারও রাজ্যপাল মহুয়া মৈত্রের ওই টুটইকে নিশানা করে পাল্টা উত্তর দিলেন।

মানুষের ঘরে ঘরে দুধ পৌঁছে দেওয়ার কথা বলেই ফের ট্রোলড্ হলেন...

দুধ, গরু, গোমূত্র প্রভৃতি নিয়ে মন্তব্য দিলীপ ঘোষের নতুন নয়। বহুদিন ধরেই এমন কাজ করে আসছেন। এই নিয়ে সোশ্যাল মিডিয়ায় বহুবার ট্রলড হতেও দেখা গিয়েছে দিলীপ ঘোষকে

প্রধানমন্ত্রীর ইয়াস বৈঠক বয়কট করার ইঙ্গিত ছিল মাননীয়ার, টুইটে দাবি রাজ্যপালের

নরেন্দ্র মোদীর (Narendra Modi) আলোচনা বৈঠক বয়কট করার পরিকল্পনা আগে থেকেই ছিল মাননীয়া মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের (Mamata Banerjee)।