- Advertisment -
HomeNewsPoliticsমহুয়ার দেওয়া তথ্য ভুল, টুইট রাজ্যপালের, পাল্টা জবাব মহুয়া মৈত্রের

মহুয়ার দেওয়া তথ্য ভুল, টুইট রাজ্যপালের, পাল্টা জবাব মহুয়া মৈত্রের

রাজনৈতিক তর্কবিতর্কের একটা অন্যতম মাধ্যম হয়ে দাঁড়িয়েছে টুইটার (Twitter), যেখানে বারবারই রাজনৈতিক মহলের বড় বড় তারকাদের দেখা গেছে রাজনৈতিক বিতর্কে সামিল (Mahua Moitra) হতে। তৃণমূলের একাধিক নেতা-নেত্রীদের সঙ্গে টুইটারে বিরোধ বেধেছে রাজ্যপাল জগদীপ ধনকরের (Governor Jagdeep Dhankhar)।

এই বিরোধ থেকে স্বয়ং মমতা ব্যানার্জিও বাদ থাকেননি। সুতরাং বোঝা গেছে যে অন্যান্য সোশ্যাল সাইট থেকে টুইটার একটি বিশেষ জনপ্রিয়তা অর্জন করেছে এই রাজনৈতিক মহলের তর্কবিতর্কের কারণে।

রাজ্য সরকারের তরফ থেকে নানারকম টুইটের জবাব দিতে প্রথম সারিতেই যিনি থাকেন সে হলো রাজ্যপাল জগদীপ ধনকর। তৃনমূলের এক সাংসদ মহুয়া মৈত্র যিনি টুইটারে একটি টুইট করেন স্বজনপোষণ নিয়ে, প্রত্যেক বারের মত এবারও রাজ্যপাল মহুয়া মৈত্রের ওই টুটইকে নিশানা করে পাল্টা উত্তর দিলেন। মহুয়া মৈত্র টুইটারে জগদীপ ধনকরকে উদ্দেশ্য করে লেখেন যে, “আঙ্কেল জি এদিন আপনি রাজ্য থেকে যাবেন সেদিন রাজ্যের পরিস্থিতি স্বাভাবিক হবে”।

আশা স্বরূপ প্রত্যেকবারের মতই এইরকম একটি টুইটের যোগ্য জবাব দিয়ে রাজ্যপাল বিস্ফোরক মন্তব্য করেন। এটা সকলেরই জানা ছিল। মহুয়া মৈত্রের (Mahua Moitra) এইরকম একটি টুইট এরপরে সকলেই অপেক্ষা করেছিল এইরকম মন্তব্যের কিরকম প্রতিক্রিয়া রাজ্যপালের (Governor Jagdeep Dhankhar) তরফ থেকে পাওয়া যাবে। শেষে সেই যোগ্য জবাব দিলেন রাজ্যপাল।

ঠিক সকাল যখন ৯.৩৭ ঠিক সেই সময় এই রাজ্যপাল মহুয়া মৈত্রকে নিশানা করে টুইট করেন। তিনি লেখেন যে, “মহুয়া মৈত্র ভুল তথ্য সকলকে দিচ্ছেন। এখন অফিসার অন স্পেশাল ডিউটির একটি পদে রয়েছেন এবং যেখানে থেকে তিনি সকলকে ভুল তথ্য দিচ্ছেন। ৬ জনের ওপর ভুল তথ্য এ দিয়ে তাদের ওপর আঙ্গুল তোলা হচ্ছে, যেটা একদমই মিথ্যে”।

তিনি আরো বলেন,”ছয়জনের মধ্যে কোনও সম্পর্কই নেই না পারিবারিক না ঘনিষ্ঠ কোন আত্মীয়র। ওই ছয় জন ওএসডি তারা প্রত্যেকে আলাদা আলাদা রাজ্যের বাসিন্দা একটি পরিবারের ঘনিষ্ঠ বা আত্মীয় নয়”। এরপরেও মুখ্যমন্ত্রীকে ট্যাগ করে ভোট হওয়ার পর যে রাজ্যের আইন শৃঙ্খলা নষ্ট হচ্ছে এবং হিংসা তৈরি হচ্ছে সেটা সম্পর্কেও বলেন। রাজ্যে যে ভয়ংকরভাবে আইন-শৃঙ্খলা নষ্ট হচ্ছে তার সমস্ত রিপোর্ট তৈরি করতে হবে বলে জানিয়েছেন রাজ্যপাল। রাজ্যপালের ওপর স্বজনপোষণ করার অভিযোগ আসে। এই অভিযোগ করে টুইট করেন মহুয়া মৈত্র।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

- Advertisment -

প্রায়শ্চিত্ত করলেন গঙ্গার ঘাটে গিয়ে! ‘মমতাই অশুভ শক্তি ধ্বংস করবে’ বিশ্বাস...

গঙ্গার ঘাটে গিয়ে মন্ত্র পড়ে, যজ্ঞ করে করলেন প্রায়শ্চিত্ত। সবকিছু ঠিকঠাক থাকলে মহালয়ার...

‘দেশ শাসন করছেন একজন মা, ধ্বংস করবে অশুভ শক্তিকে’, ইচ্ছা প্রকাশ...

ত্রিপুরার বেশকিছু বিজেপি নেতৃত্বরা নাকি তৃণমূলে নাম লেখানোর জন্য পা বাড়িয়ে রয়েছেন।

আগামী ২০ বছরের মধ্যে বাংলা দেশের ১ নম্বর শিল্পক্ষেত্র হবে’,সভামঞ্চে দাবী...

আগামী ১০০ বছরের মধ্যে রাজ্যে আর বিদ্যুতের অভাব থাকবে না। আগামী ৩ থেকে ৪ বছরের মধ্যে দেউচাপাঁচমি বিশ্বের দ্বিতীয় বৃহত্তম কয়লাখনি হয়ে যাবে’।

রাজ্য সভাপতির পদ হারিয়েও বাংলার হয়ে কাজ করতে চান দিলীপ ঘোষ

বাবুল তৃণমূলে যোগদানের পাশাপাশি বিজেপির রাজ্য সভাপতি পদ থেকে দিলীপ ঘোষকে সরিয়ে দেওয়া হয়েছে।

পরাজিত আসনে ময়নাতদন্তের দাবি শুভেন্দুর, জেলা স্তরে নেতাদের কড়া পরামর্শ

যেই আসনে বিজেপি (BJP) পর্যুদস্ত হয়েছে এবং খুব খারাপভাবে হেরেছে সেই সমস্ত আসনে হারের কারণ পর্যালোচনা করার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন শুভেন্দু অধিকারী (Suvendu Adhikari)।

শুভেন্দু অধিকারীকে পদ থেকে সরানোর প্রক্রিয়া শুরু করে দিয়েছে তৃণমূল কংগ্রেস!

মমতা (Mamata Banerjee) তৃণমূলের (TMC) প্রতি কড়া আক্রমণ শানিয়েছেন বিজেপির (BJP) বর্তমান বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু (shuvendu adhikari)।

যারা বেসুরো তারা তাড়াতাড়ি বিদায় নিন, আমরা অন্যায়ের বিরুদ্ধে লড়াই জারি...

মন জয়ের কাজ আমরা চালিয়ে যাব মানুষের পাশে থেকে। "দল ঠিক ব্যবস্থা নেবে তাঁদের বিরুদ্ধে" যারা দলের ভালো চায় না : Locket Chatterjee

‘মারব এখানে, লা* পড়বে শ্মশানে’, এই ডায়লগের জন্যই কলকাতা হাইকোর্টে ছুটলেন...

যুব তৃণমূলের দাবী, সমাবেশে ‘মারব এখানে, লাশ পড়বে শ্মশানে’- Mithun Chakraborty-র বলা ডায়লগের পরই বাংলায় জ্বলে উঠেছে হিংসার আগুন।

মানুষের ঘরে ঘরে দুধ পৌঁছে দেওয়ার কথা বলেই ফের ট্রোলড্ হলেন...

দুধ, গরু, গোমূত্র প্রভৃতি নিয়ে মন্তব্য দিলীপ ঘোষের নতুন নয়। বহুদিন ধরেই এমন কাজ করে আসছেন। এই নিয়ে সোশ্যাল মিডিয়ায় বহুবার ট্রলড হতেও দেখা গিয়েছে দিলীপ ঘোষকে

প্রধানমন্ত্রীর ইয়াস বৈঠক বয়কট করার ইঙ্গিত ছিল মাননীয়ার, টুইটে দাবি রাজ্যপালের

নরেন্দ্র মোদীর (Narendra Modi) আলোচনা বৈঠক বয়কট করার পরিকল্পনা আগে থেকেই ছিল মাননীয়া মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের (Mamata Banerjee)।